বিজয়ের মাস

জেনে নিন গলায় মাছের কাঁটা বিঁধলে কিভাবে খুলবেন






আমাদের কোন সময় মাছ ভাত খেতে খেতে অসাবধানতা বশত গলায় মাছের কাঁটা আটকে যায়। আর গলায় মাছের কাঁটা বিঁধলে সবার মনেই অসম্ভব অস্বস্তির সৃষ্টি হয় যা খুবই পীড়াদায়ক। তাই গলায় আটকা মাছের কাঁটা নামানোর উপায় সম্পর্কে আমাদের জানা থাকা দরকার। কথা না বাড়িয়ে আসুন জেনে নিই গলা থেকে মাছের কাঁটা সহজে নামানোর ৮টি উপায় :


১. সাদা ভাত : গলায় আটকা মাছের কাঁটা সাদা ভাত খেয়ে খুব সহজে নামানো যায়। এ জন্য আপনাকে ভাতকে ছোট ছোট বল বানিয়ে নিতে হবে। তারপর পানি দিয়ে গিলে ফেলতে হবে। এতে সহজে গলায় আটকা মাছের কাঁটা নেমে যাবে। মনে রাখবেন, শুধু ভাত খেলে কিন্তু কাঁটা নামবে না।

২. হোমিওপ্যাথি চিকিৎসা : গলায় আটকা মাছের কাঁটা নামানোর সর্বাধিক কার্যকরী চিকিৎসা হচ্ছে হোমিওপ্যাথি। এ জন্য আপনাকে নিকটস্থ ডাক্তারের সঙ্গে যোগাযোগ করে ২০০ পাওয়ারের সাইলিসিয়া নামক মেডিসিন কিনে খেতে হবে। এতে করে খুব দ্রুত কাঁটা নেমে যাবে।

৩. পানি পান করুন : গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে পানি পান করুন। পারলে হালকা গরম পানির সঙ্গে সামান্য পরিমাণ লবণ মিশিয়ে পান করুন। এতে গলায় আটকা মাছের কাঁটা নরম হয়ে নেমে যায়।

৪. কলা খান : গলায় মাছের কাঁটা বিঁধলে দেরি না করে পারলে চটজলদি একটি কলা খান। কলা খেতে খেতে কখন যে কাঁটা নেমে যাবে তা আপনি টেরও পাবেন না।

৫. লেবু খান : গলায় মাছের কাঁটা আটকে গেলে এক টুকরা লেবু নিন। তাতে একটু লবণ মাখিয়ে চুষে চুষে এর রস খান। দেখবেন কাঁটা নরম হয়ে নিমিষেই নেমে গেছে।

৬. অলিভ ওয়েল খান : গলায় কাঁটা বিঁধেছে? তাহলে মোটেই দেরি না করে একটু অলিভ অয়েল খান। এতে কাঁটা পিছলে গলা থেকে নেমে যাবে।

৭. ভিনেগার খান : পানির সঙ্গে সামান্য পরিমাণ ভিনেগার মিশিয়ে পান করলে গলায় আটকা মাছের কাঁটাখুব সহজে নেমে যায়। এটি ঠিক লেবুর মতো কাজ করে।

৮. কোকাকোলা পান করুন : গলায় আটকা কাঁটা নামানোর আধুনিক পদ্ধতি হচ্ছে কোকাকোলা। গলায় কাঁটা আটকার সঙ্গে সঙ্গে এক গ্লাস কোক পান করলে তা নরমহয়ে নেমে যায়।

এ ছাড়া শুকনো মুড়ি খেলেও এর কার্যকরী সমাধান পাওয়া যায়। তো আজকের মত ভালো থাকবেন সবাই। ধন্যবাদ।